Slogan

ভ্রাম্যমাণ লাইব্রেরি

আমাদের দেশের ভালো লাইব্রেরি-ব্যবস্থা আজ প্রায় নেই বললেই চলে। লাইব্রেরিগুলো সংখ্যায় দীন, এদের ব্যবস্থাপনা দুর্বল, বইয়ের মান দুঃখজনক এবং পরিবেশ বিমর্ষ। ভালো বই বাড়িতে নিয়ে পড়ার সুযোগ পাঠকদের আজ নেই বললেই চলে। এমন অবস্থা চলতে থাকলে জাতির মননশীলতা ও জ্ঞানতাত্ত্বিক ভিত্তি কী করে মজবুত হবে? বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্রের পক্ষ থেকে আমরা তাই দেশের প্রতিটি বাড়ির দোরগোড়ায় বই পৌঁছে দেওয়ার উদ্যোগ নিয়েছি। দেশভিত্তিক উৎকর্ষ কার্যক্রম ও পাঠাভ্যাস উন্নয়ন কার্যক্রমের পাশাপাশি সারা দেশে গড়ে তোলা হয়েছে ভ্রাম্যমাণ লাইব্রেরি।
 

ভ্রাম্যমাণ লাইব্রেরির দৃষ্টিনন্দন গাড়িগুলো সাতটি আলাদা আকারের- এগুলোতে থাকে যথাক্রমে ৪০০০, ৬০০০, ৮০০০, ১১০০০ ও ১৭০০০ বই। প্রতিটি লাইব্রেরি প্রতি সপ্তাহে শহর ও গ্রাম-এলাকার গড়ে ৪০টি এলাকায় গিয়ে আধঘণ্টা থেকে দুঘণ্টা পর্যন্ত সদস্যদের মধ্যে বই দেওয়া-নেওয়া করে। সপ্তাহের কোন দিনে কটার সময় কোন গাড়ি কোন এলাকায় কোথায় যাবে তা আগে থেকেই ঠিক করা আছে।

১৯৯৯ সালে ভ্রাম্যমাণ লাইব্রেরি প্রথমে চালু হয় দেশের চারটি বড় শহরে- ঢাকা, চট্টগ্রাম, খুলনা ও রাজশাহীতে। এরপর বড় হয়ে আজ ভ্রাম্যমাণ লাইব্রেরি ২০২২ সালে দেশের ৬৪টি জেলার মোট ৩০০ টি উপজেলার ৩২০০ লোকালয়ে কার্যক্রম পরিচালনা করছে, অর্থাৎ ৩২০০ ছোট লাইব্রেরির কাজ করছে। এই লাইব্রেরিগুলোর বর্তমান সদস্যসংখ্যা তিন লক্ষ তিরিশ হাজার। বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্র ভ্রাম্যমাণ লাইব্রেরির সদস্য হওয়ার নিয়মাবলি

 


সময়সুচী ডাউনলোড করুন:

ঢাকা মহানগর

ঢাকা বিভাগ

চট্টগ্রাম বিভাগ

খুলনা বিভাগ

রাজশাহী বিভাগ

বরিশাল বিভাগ

সিলেট বিভাগ

রংপুর বিভাগ

ময়মনসিংহ বিভাগ